View Question 2013 views

Subject : ১০টি উন্নয়ণমূলক কাজ ও আগামী ২ বছরের উন্নয়ণ কর্মসূচী প্রসংগে!

Avatar

Written By : AmarMP Admin

মাননীয় এমপি মহোদয়,

আমারএমপি ডট কমের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা নিন। আমরা আপনার সংসদীয় এলাকার জনগনের পক্ষ থেকে আপনার মাধ্যমে ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে এরকম ১০টি উন্নয়ণমূলক কাজ এবং আপনার আগামী ২ বছরের উন্নয়ণ কর্মসূচী প্রসংগে জানতে চাই।

বিনীত,

আমার এমপি ডট কম কর্তৃপক্ষ।

Avatar

Written By : Dr.Dipu Moni -ডাঃ দীপু মনি

Public

বাংলাদেশে জনগণ এবং জনপ্রতিনিধিদের মধ্যে পারস্পারিক সেতুবন্ধন এবং জনপ্রতিনিধিদের জবাবদিহিতার প্ল্যাটফর্ম হিসেবে কাজ শুরু করেছে অনলাইন ভিত্তিক ভিন্নধর্মী ওয়েব সাইট আমার এমপি ডট কম। খুব অল্প সময়েই দেশব্যাপী আলোড়ন সৃষ্টি করেছে ওয়েব পোর্টালটি। 

 বর্তমানে আমার এমপি ডট কমের মাধ্যমে ধারাবাহিকভাবে সকল মাননীয় সংসদ সদস্যদের কাছে তাঁদের বিগত বছরগুলোতে করা উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড সম্পর্কে জানতে চাওয়া হচ্ছে। একই সাথে জানতে চাওয়া হচ্ছে আগামী দুই বছরে তাঁদের পরিকল্পনা সম্পর্কেও। 

 এবার আমার এমপি ডট কমের অসাধারণ এই উদ্যোগের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন চাঁদপুর-৩ (চাঁদপুর হাইমচর) আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মনি। তিনি জানালেন তাঁর সময়ে করা উন্নয়নসমূহের কথা।

 আমার এমপি ডট কম কর্তৃপক্ষের করা দ্বিতীয় প্রশ্ন, আগামী দুই বছরের পরিকল্পনার কথাও জানিয়েছেন ডা. দীপু মনি।  

ডা. দীপু মনির কাছে তার বিগত বছরগুলোর কাজের হিসেব এবং আগামীতে করণীয় সম্পর্কে জানতে চাওয়া হলে তিনি ডিজিটাল বাংলাদেশে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে জনগণ এবং জনপ্রতিনিধিদের মাঝে সেতুবন্ধনকারী সাইট হিসেবে কাজ করা আমার এমপি ডট কমকে ধন্যবাদ জানান। এমন কাজের প্রশংসাও করেন তিনি। 

চাঁদপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে বিগত বছরগুলো যে কাজ করেছেন তার হিসেব তিনি আমার এমপি ডট কমের মাধ্যমে তাঁর নির্বাচনী এলাকার জনগণ এবং দেশের মানুষের কাছে তুলে ধরেন। 

ডা. দীপু মনি সংসদ সদস্য হিসেবে যে কাজগুলো করেছেন তা হলো:

 ১.  মেঘনার করাল গ্রাস থেকে চাঁদপুর হাইমচর নদী ভাঙ্গণ প্রতিরোধে ৩শ’ ৭৬ কোটি ৩০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ১৮ দশমিক ৬ কিলোমিটার বাঁধ নির্মাণ।

 ২. ২শ’ ৯ কোটি টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর লাকসাম রেল পথ সংস্কার এবং ডেমু ট্রেন সার্ভিস চালু হয়েছে। 

 ৩. সড়ক ও গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়নে:

  • ৭৭ কোটি ৯৮ লাখ টাকা ব্যয়ে ৩শ’ কিলোমিটার রাস্তা কার্পেটিং ও মেরামত করা হয়েছে।
  • ২৪ কোটি ১৮ লাখ টাকা ব্যয়ে ৫শ’ ৫১ মিটার কালভার্ট ও ব্রিজ নির্মাণ।
  • ডাকাতিয়া নদীর  উপর এম এ ওয়াদুদ ব্রিজ নির্মাণ।
  • বেশ কয়েকটি আশ্রায়ন প্রকল্পের কাজ শেষ হয়েছে।

 ৪. বিদ্যুৎ উৎপাদন এবং গ্রাহক সেবা:

  • ১ হাজার ২শ’ কোটি ব্যয়ে ১শ’ ৫০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ হয়েছে।
  • ১৯ কোটি ৩৯ লাখ টাকা ব্যয়ে ১শ’৪৩ কিলোমিটার বিদ্যুৎ সঞ্চালন লাইন টেনে ১৩ হাজার ৩শ’ ৪৬ জন গ্রাহককে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া হয়েছে।

 ৫.জনস্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নয়ন:

  • ১০ কোটি টাকা ব্যয়ে ১টি পানি শোধনাগার ও ২০ কিলোমিটার পানি সরবরাহ লাইন নির্মাণ এবং ৬শ’টি নলকূপ স্থাপন করা হয়েছে।

৬.শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়ন:

  • ৩৭ কোটি ৩৫ ব্যয়ে ১শ’ ২০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ১৪ কোটি ৩৩ লাখ টাকা ব্যয়ে ৬টি কলেজের ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ২৫ কোটি টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর সরকারী কলেজের একাডেমিক ভবন এবং ছাত্রী হোস্টেল নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ৬ কোটি ৪২ লাখ টাকা ব্যয়ে ৩৫ টি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ১ কোটি ৯৬ লাখ টাকা ব্যয়ে ৯৫টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভবন সংস্কার করা হয়েছে।
  • ৯৭ লাখ টাকা ব্যয়ে ১শ’২৯ টি আর্সেনিকমুক্ত নলকূপ স্থাপন করা হয়েছে।
  • ৫৮৮ জন প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ করা হয়েছে।

 ৭.স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানের অবকাঠামো:

  • ৫ কোটি ১২ লাখ টাকা ব্যয়ে ৮টি ইউনিয়ন পরিষদ ভবন কমপ্লেক্স নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ৪ কোটি ৮৩ লাখ টাকা ব্যয়ে উপজেলা কমপ্লেক্স ভবনসহ ৯টি অফিস নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ফ্লাড শেল্টার নির্মাণ করা হয়েছে।

 ৮.স্বাস্থ্য সেবার মান উন্নয়ন:

  • ৭ কোটি ৮০ লাখ টাকা ব্যয়ে চাঁদপুরে ডায়াবেটিক হাসপাতাল নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ১ কোটি টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর ও হাইমচরে ২টি অ্যাম্বেলেন্স প্রদান করা হয়েছে।
  • চাঁদপুরে নার্সিং ইনস্টিটিউট স্থাপন এবং ২শ’ শয্যা হাসপাতালকে ২শ’৫০ শয্যায় উন্নীত করা হয়েছে।
  • ৪১ লাখ টাকা ব্যয়ে ৩৭ টি কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করা হয়েছে।
  • স্বাস্থ্যখাতে ১শ’৩৫ জন জনবল নিয়োগ করা হয়েছে।

 ৯.বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ভৌত অবকাঠামো উন্নয়ন:

  • ৮ কোটি টাকা ব্যয়ে জেলা কারাগার নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ২ কোটি ৩৯ লাখ ব্যয়ে জেলা রেজিষ্টার অফিস নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ১৮ কোটি ৩৮ লাখ টাকা ব্যয়ে মেরিন টেকনোলজি ইনস্টিটিউট নির্মাণ।
  • ২ কোটি ৯৮ লাখ টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর কোষ্টগার্ড স্টেশন নির্মাণ।
  • ২ কোটি ৪১ লাখ টাকা ব্যয়ে আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস নির্মাণ।
  • ১ কোটি ৪৭ লাখ টাকা ব্যয়ে সার্কিট হাউজের ঊর্ধ্বমুখী সম্প্রসারণ করা হয়েছে।
  • ১ কোটি ৭৭ লাখ টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর এবং হাইমচরে ফায়ার সার্ভিস স্টেশন নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ২ কোটি ৫০ লাখ টাকা ব্যয়ে ডিপ্লোমা ফিসারিজ ইন্সটিউট নির্মাণ।

 ১০. সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে উন্নয়ন, যুব উন্নয়ন, ত্রাণ ও পুর্নবাসন কার্যক্রম, মাহিলা উন্নয়ন:

  • ১ কোটি ৩৩ লাখ টাকা ব্যয়ে চাঁদপুর শিল্পকলা একাডেমির অডিটোরিয়াম নির্মাণ করা হয়েছে।
  • ৪ কোটি ৫৬ লাখ টাকা ব্যয়ে ৪টি যুব প্রশিক্ষণ কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে।
  • ঋণ বিতরণ ও প্রশিক্ষণের জন্য ১৯ কোটি ৪৩ লাখ টাকা ব্যয় করা হয়েছে।
  • ১৯ কোটি ৯৫ ব্যয় করা হয়েছে ২২ হাজার ২শ’ ৫০ জনকে ঋণ তিবরণ প্রকল্পে।
  • ১ কোটি ২১ লাখ টাকা ব্যয় করা হয়েছে একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের জন্য।
  • ৮১ কোটি ৫০ লাখ টাকা ব্যয় করা হয়েছে ভিজিএফ, ভিজিডি, টি আর, খাবিখা, জিআর এর জন্য।
  • ৪ কোটি ২২ লাখ টাকা ব্যয় করা হয়েছে ১১ হাজার মানুষকে প্রশিক্ষণ দিতে, ভাতা, ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করতে।  

আমার এমপি ডট কম কর্তৃপক্ষের দ্বিতীয় প্রশ্নটি ছিল আগামী দুই বছরের পরিকল্পনা সর্ম্পকে। আগামী দুই বছরে ডা. দীপু মনি উন্নয়ন পরিকল্পনা তুলে ধরেন আমার এমপি ডট কমের সামনে। আগামী দুই বছর তিনি যা করতে চান উল্লেখযোগ্য হলো


১। চাঁদপুরে একটি আধুনিক নৌবন্দর স্থাপনের কাজ চলছে ।
২। মেডিক্যাল কলেজ ও আইসিইউ নির্মান
৩। মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর নির্মান এবং চাঁদপুর শহরের প্রাণকেন্দ্রে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি ( মুরাল ) স্থাপন। যেখানে আমাদের জাতীয় দিবসগুলোতে সাধারণ মানুষ জতির জনকের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে পারবে।
৪। চাঁদপুর ব্র্যান্ডিং এর মাধ্যমে চাঁদপুরকে একটি পর্যটন নগরী হিসেবে বিশ্বের কাছে পরিচিতি করে তোলা।

জনগণের সামনে জবাবদিহিতার মাধ্যম হিসেবে কাজ শুরু করা ব্যতিক্রমধর্মী ওয়েব সাইট আমার এমপি ডট কম এ বাংলাদেশের নির্বাচিত ৩শ’ এমপি এবং সংরক্ষিত ৫০ নারী এমপিকে প্রশ্ন করা যাচ্ছে যেকোন বিষয়ে। আপনার এলাকার এমপিকে যে কোন বিষয়ে প্রশ্ন করতে চাইলে আপনার সামনে আমার এমপি ডট কম রয়েছে আপনার এবং সংশ্লিষ্ট সেই এমপি’র মধ্যে সংযোগকারী প্ল্যাটফর্ম হিসেবে।